করোনা সুরক্ষায় লড়ছেন চেয়ারম্যান বজলুর রহমান

এসএম স্বপনঃ গোটা দেশব্যাপী ছড়িয়ে পড়া করোনা ভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউ এ বন্দর নগরী বেনাপোলে নাস্তানাবুদ অবস্থা। দিনদিন এ অঞ্চলে করোনা রোগীর সংখ্যা বেড়েই চলেছে। আর সেই আতঙ্কের ভাজ পড়েছে পুরো বেনাপোলবাসীর মাঝে।
ভারত সীমান্ত ঘেঁষা শহর বেনাপোল হওয়ায়, এখানে করোনা ঝুঁকিটাও অন্যান্য অঞ্চলের তুলনায় অনেক বেশি। সেজন্য প্রশাসন ও স্থানীয় ভাবে এ অঞ্চলের মানুষকে সর্বদা সচেতন করতে মাইকিং সহ বিভিন্ন ভাবে সতর্ক করা হচ্ছে।

আর পুলিশের পাশাপাশি মানুষকে সচেতনতার জন্য সম্মুখভাগে যুদ্ধ করে যাচ্ছেন বেনাপোল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও বাজার কমিটির সাঃ সম্পাদক আলহাজ্ব বজলুর রহমান। তিনি সর্বদা সকাল সন্ধ্যা জনসাধারণকে করোনা থেকে সুরক্ষিত রাখতে ছুটে চলেছেন পুরো বাজারময়। কখনো পুলিশের সাথে যুক্ত হয়ে, কখনো নিজে সাইকেল চালিয়ে টহল দিচ্ছেন বাজারের এগলি-ওগলি। করোনা ভয়কে উপেক্ষা করে তার এ যুদ্ধ তিনি চালিয়ে যাচ্ছেন জনসাধারণকে সুস্থ রাখার লক্ষ্যে। সচেতন ও সতর্ক করছেন সবাইকে।

এবিষয়ে চেয়ারম্যান বজলুর রহমান বলেন, সীমান্ত ঘেঁষা শহর হওয়ায় সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ শহর এখন বেনাপোল। ভারতীয় ট্রাক ড্রাইভার সহ প্রতিদিন বেনাপোলে অজস্র মানুষের যাতায়াত। তাই এখানে করোনা ঝুঁকিটাও একটু বেশি।
এখন বেনাপোলের বেশির ভাগ বাড়িতেই কেউ না কেউ জ্বর-কাশিতে আক্রান্ত। তারা অনেকে করোনা উপসর্গ থাকা স্বত্বেও করোনা টেস্ট করছে না। কেউ কেউ উপসর্গের কথা বলে ওষুধ কিনে খাচ্ছেন। অনেকে আবার যত্রতত্র খোলামেলা ভাবে ঘুরে বেড়াচ্ছে। ফলে করোনা ঝুঁকিটাও একটু বেড়ে যাচ্ছে।

তাই নিজে সবাইকে সচেতন করতে মাঠে নেমেছি। আর যারা সর্দি-কাশি-জ্বরে ভুগছেন তাদেরকে করোনা টেস্টের পরামর্শ দেন চেয়ারম্যান বজলু।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *