স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ব্যর্থতায় করোনা পরিস্থিতি ভয়াবহতার দিকে: জি এম কাদের

নিজস্ব প্রতিবদেক : জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান ও বিরোধীদলীয় উপনেতা গোলাম মোহাম্মদ কাদের বলেছেন, ‘অতিমারি করোনার সংক্রমণ লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে। সেই সাথে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে আইসিইউ’র চাহিদা। কিন্তু দেশের ৩৫ জেলায় এখনো আইসিইউ নেই।’

তিনি বলেন, ‘এক বছর আগে প্রধানমন্ত্রী সকল জেলায় আইসিইউ স্থাপণের নির্দেশ দিয়েছিলেন। সকল জেলায় আইসিইউ স্থাপণে ব্যর্থ হয়েছে স্বাস্থ্য মন্ত্রনালয়।’

আজ এক বিবৃতিতে জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান আরও বলেন, ‘গণমাধ্যমের রিপোর্ট অনুযায়ী দেশের আইসিইউ’র ৭৬ ভাগই ঢাকা বিভাগে। এর মধ্যে রাজধানীতেই ৭৩ ভাগ। আইইডিসিআরের তথ্য মতে গত জুন মাসে করোনা শনাক্তের ৭৮ ভাগই ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট। তাই করোনা আক্রান্ত রোগীদের জন্য আইসিইউ এর চাহিদা বেড়েছে।’

তিনি বলেন, ‘সকল জেলায় আইসিইউ না থাকায় কঠোর লকডাউনের মাঝে করোনা রোগী নিয়ে এক জেলা থেকে অন্য জেলায় ছোটাছুটি করছে স্বজনরা। আপরদিকে, রাজধানীর সরকারী হাসপাতাল গুলোর আইসিইউ ফাঁকা নেই বললেই চলে, তাই দ্রুতই বেসরকারী হাসপাতালের আইসিইউগুলো পূর্ণ হয়ে যাচ্ছে।’

গতকাল স্বাস্থ্য অধিদপ্তর বলেছে, ‘রোগী বাড়লে অক্সিজেন সরবরাহ চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়াবে’ উল্লেখ করে জি এম কাদের বলেন, ‘পরিস্থিতি আরও খারাপ হলে, আইসিইউ এর জন্য হাহাকার উঠবে। শংকাজনক হারে বেড়ে যেতে পারে মৃত্যুর হার।’

বিবৃতিতে জাতীয় পার্টি বলেন, ‘স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ব্যার্থতায় ভয়াবহ ভবিষ্যতের দিকে করোনা পরিস্থিতি। তাই যত দ্রুত সম্ভব সকল জেলায় আইসিইউ স্থাপণ এবং পর্যাপ্ত অক্সিজেন সহায়তা নিশ্চিত করতে কার্যকর উদ্যোগ নিতে হবে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *