সাতক্ষীরায় প্রধানমন্ত্রীর গাড়ীবহরে হামলার সাজাপ্রাপ্ত পলাতক আসামী গ্রেফতার

এস এম মহিদার রহমান, সাতক্ষীরা প্রতিনিধি ঃ সাতক্ষীরার কলারোয়ায় বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ও সাবেক বিরোধী দলীয় নেত্রী শেখ হাসিনার গাড়ী বহরে হামলা মামলার সাজাপ্রাপ্ত আসামী ইয়াসিন আলীকে (৪২) গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার (১০ আগষ্ট) ভোরারাতে উপজেলার রায়টা গ্রাম থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। এনিয়ে, বর্তমানে এ মামলায় সাবেক সাংসদ হাবিবুল ইসলাম হাবিসহ মোট ৩৪ জন জেল হাজতে রয়েছেন।
গ্রেফতারকৃত ইয়াছিন আলী কলারোয়া উপজেলার রায়টা গ্রামের আক্তার আলীর ছেলে।
কলারোয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মীর খায়রুল কবীর জানান, বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ও তৎকালীন বিরোধী দলীয় নেত্রী শেখ হাসিনার গাড়ি বহরে হামলা মামলার সাড়ে ৪ বছরের সাজাপ্রাপ্ত আসামী ইয়াসিন আলী দীর্ঘদিন পলাতক ছিলেন। তার বিরুদ্ধে মোট ৪ টি মামলা রয়েছে। মামলা নং-এসটিসি-২০৮/১৫, জিআর-২৫৯/১৪, এসটিসি-২০৭/১৫, এসটিসি-২০৮/১৫। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে তাকে ভোর রাতে গ্রেফতার করা হয়েছে।
উল্লেখ্য ঃ ২০০২ সালের ৩০ আগস্ট তৎকালিন বিরোধী দলীয় নেত্রী আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সাতক্ষীরায় এক মুক্তিযোদ্ধার ধর্ষিতা স্ত্রীকে সদর হাসপাতাল থেকে দেখে মাগুরা ফিরে যাবার পথে কলারোয়ায় সন্ত্রাসীদের হামলা শিকার হন। এতে শেখ হাসিনা অক্ষত থাকলেও তার সফরসঙ্গী ফাতেমা জাহান সাথী, জোবায়দুল হক রাসেল, ইঞ্জিনিয়ার শেখ মুজিবর রহমান, শহিদুল হক জীবন, আবদুল মতিনসহ কয়েকজন সাংবাদিকও হামলার শিকার হন। এ ঘটনায় কলারোয়া মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মোঃ মোসলেমউদ্দিন ২৭ জনকে আসামী করে নালিশী আদালত সাতক্ষীরায় একটি মামলা করেন। পরবর্তীতে এ মামলা খারিজ হয়ে গেলে ২০১৪ সালের ১৫ অক্টোবর ফের মামলাটি পুনরুজ্জীবিত হয়। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সাবেক সংসদ সদস্য হাবিবুল ইসলাম হাবিবসহ ৫০ জনের বিরুদ্ধে চার্জশীট দেন। চলতি বছরের ২৭ জানুয়ারী এই মামলায় রাষ্ট্রপক্ষ ও আসামীপক্ষের যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষে সাতক্ষীরার চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ হুমায়ুন কবির সাবেক সাংসদ সদস্য হাবিবুল ইসলাম হাবিবসহ ৩৪ জনের জামিন নামঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরন করেন। এর মধ্যে বিএনপি নেতা মাহফুজুর রহমান সাবু জেলহাজতে অসুস্থ হয়ে মারা গেছেন। বর্তমানে ইয়াসিন আলীসহ মোট ৩৪ জন দন্ডপ্রাপ্ত আসামী কারাগারে রয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *