ভারতে করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে ৫৯৪ চিকিৎসকের মৃত্যু

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : মহামারি করোনা ভাইরাসে বর্তমানে সবচেয়ে বেশি ধুঁকতে থাকা দেশ ভারতে দ্বিতীয় ঢেউয়ে ৫৯৪ চিকিৎসকের মৃত্যু হয়েছে। বুধবার (২ জুন) ইন্ডিয়ান মেডিক্যাল অ্যাসোসিয়েশনের (আইএমএ) বরাত দিয়ে টাইমস অব ইন্ডিয়ার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। আইএমএ প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ভারতে করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে রাজধানী দিল্লি। এখানে ১০৭ জন চিকিৎসক মারা গেছেন।

এছাড়া বিহারে ৯৬ জন, উত্তরপ্রদেশ ৬৭, রাজস্থানে ৪৩ ও ঝাড়খণ্ডে ৩৯ মারা গেছেন। বাকি চিকিৎসকরা দেশটির অন্যান্য প্রবেশগুলোর। দেশটিতে ১২ লাখের বেশি চিকিৎসক থাকলে সংস্থাটির কাছে থাকা সাড়ে ৩ লাখ চিকিৎসকের রেকর্ড যাচাই করে এ তথ্য প্রকাশ করা হয়েছে। সংস্থাটি বলছে, চিকিৎসক মৃত্যুর সংখ্যা আরও বেশি হতে পারে।

এদিকে বুধবার ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে নতুন করে করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ১ লাখ ৩২ হাজার ৭৮৮ জন মানুষ। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন সংক্রমিত রোগী বেড়েছে ৫ হাজারের বেশি। একই সময়ে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৩ হাজার ২০৭ জন।

দৈনিক আক্রান্তের চেয়ে বেশি মানুষ সুস্থ হয়ে ওঠায় ভারতে প্রতিদিনই কমছে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা। মাসখানেক আগেও দেশটিতে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ছিল ৩৭ লাখেরও বেশি। গত প্রায় তিন সপ্তাহে কমতে কমতে সেই সংখ্যা নেমে এসেছে ১৮ লাখের নিচে।

গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে সক্রিয় রোগী কমেছে প্রায় ১ লাখের বেশি। ফলে দেশটিতে এখন মোট সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ১৭ লাখ ৯৩ হাজার ৬৪৫ জন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *