দেশে গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় মৃত্যু ২১২ ; শনাক্ত ১৩,৮৬২

স্টাফ রিপোর্টার : দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভা ইরাসে আক্রান্ত হয়ে ২১২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মোট দেশে করোনায় মারা গেলেন ২০ হাজার ৪৬৭ জন। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ১৩ হাজার ৮৬২ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১২ লাখ ৪০ হাজার ১১৫ জন। ২৪ ঘন্টায় ৪৫ হাজার ৪৪টি নমুনা পরীক্ষায় শনাক্তের হার ৩০.৭৭ শতাংশ। শুক্রবার (৩০ জুলাই) স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানানো হয়।

দেশের বিভিন্ন জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ও উপসর্গ নিয়ে ২০ জেলায় ১৫৯ জনের মৃত্যু হয়েছে। শুক্রবার (৩০ জুলাই) জেলা প্রতিনিধিদের পাঠানো খবরে এ তথ্য জানা গেছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়ে এবং উপসর্গ নিয়ে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু হয়েছে ময়মনসিংহে। এ বিভাগে ১৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। এরপরই রয়েছে সিলেটে। এ বিভাগে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ও উপসর্গ নিয়ে ১৭ জনের মৃত্যু হয়েছে।

এরপরই রয়েছে, বরিশালে ১৬, ফরিদপুরে ১৪, কুমিল্লায় ১৪, ফরিদপুরে ১৪, রাজশাহীতে ১৩, কুষ্টিয়ায় ৮, খুলনায় ৮, যশোরে সাতজন, ঝিনাইদহে ছয়, চুয়াডাঙ্গায় ছয়, পটুয়াখালীতে পাঁচ, সাতক্ষীরায় ৪, নারায়ণগঞ্জে দুই, দিনাজপুরে দুই, ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় দুই, বাগেরহাট ১, নড়াইল ১, মেহেরপুরে একজনের মৃত্যু হয়েছে।

গতকাল সারাদেশে জাতীয়ভাবে ঘোষিত করোনায় আক্রান্ত হয়ে ২৩৯ জনের মৃত্যু হয়। এ নিয়ে মোট মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২০ হাজার ২৫৫ জনে। এদিনে শনাক্তের সংখ্যা ছিল ১৫ হাজার ২৭১ জনে।

এদিকে বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা কমলেও প্রাণহানি বেড়েছে। সর্বশেষ গত ২৪ ঘণ্টায় সারা বিশ্বে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১০ হাজার ২৯০ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় মৃত্যু বেড়েছে প্রায় ২০০ জন। এতে বিশ্বজুড়ে মৃতের সংখ্যা পৌঁছেছে ৪২ লাখ ১৩ হাজার ১২০ জনে।

একই সময়ের মধ্যে ভাইরাসটিতে নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৬ লাখ ৫৫ হাজার ৫২০ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় নতুন শনাক্ত রোগীর সংখ্যা কমেছে প্রায় ২ হাজার। এতে মহামারির শুরু থেকে ভাইরাসে আক্রান্ত মোট রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৯ কোটি ৭৩ লাখ ১৩ হাজার ৪২২ জনে।এর মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১৭ কোটি ৮৪ লাখ ৯১ হাজার ১৮৪ জন।

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান রাখা ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডওমিটার থেকে শুক্রবার (৩০ জুলাই) সকালে এই তথ্য জানা গেছে।

ওয়ার্ল্ডওমিটারের সবশেষ তথ্য অনুযায়ী, করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যু হয়েছে বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশ যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনা সংক্রমিত হয়েছেন ৩ কোটি ৫৫ লাখ ৮৪ হাজার ১৯২ জন আর মারা গেছেন ৬ লাখ ২৮ হাজার ৪৮৭ জন।

করোনায় আক্রান্তের তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে প্রতিবেশী দেশ ভারত। দেশটিতে এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩ কোটি ১৫ লাখ ৭১ হাজার ২৯৫ জনে। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৪ লাখ ২৩ হাজার ২৪৪ জনের।

লাতিন আমেরিকার দেশ ব্রাজিল করোনায় আক্রান্তের দিক থেকে তৃতীয় ও মৃত্যুর সংখ্যায় তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে। দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগী ১ কোটি ৯৮ লাখ ৩৯ হাজার ৩৬৯ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৫ লাখ ৫৪ হাজার ৬২৬ জনের।

অন্যদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় সবচেয়ে বেশি প্রাণহানির ঘটনা ঘটেছে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশ ইন্দোনেশিয়ায়। এই সময়ের মধ্যে দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ১ হাজার ৮৯৩ জন এবং নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৪৩ হাজার ৪৭৯ জন। এছাড়া মহামারির শুরু থেকে দেশটিতে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৩৩ লাখ ৩১ হাজার ২০৬ জন এবং মৃত্যু হয়েছে ৯০ হাজার ৫৫২ জনের।

এছাড়া এখন পর্যন্ত ফ্রান্সে ৬০ লাখ ৭৯ হাজার ২৩৯ জন, রাশিয়ায় ৬২ লাখ ১৮ হাজার ৫০২ জন, যুক্তরাজ্যে ৫৮ লাখ ১ হাজার ৫৬১ জন, ইতালিতে ৪৩ লাখ ৩৬ হাজার ৯০৬ জন, তুরস্কে ৫৬ লাখ ৮২ হাজার ৬৩০ জন, স্পেনে ৪৪ লাখ ২২ হাজার ২৯১ জন, জার্মানিতে ৩৭ লাখ ৭২ হাজার ৩০৭ জন এবং মেক্সিকোতে ২৭ লাখ ৯০ হাজার ৮৭৪ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

অন্যদিকে করোনায় আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত ফ্রান্সে এক লাখ ১১ হাজার ৭৬৪ জন, রাশিয়ায় এক লাখ ৫৬ হাজার ৯৭৭ জন, যুক্তরাজ্যে এক লাখ ২৯ হাজার ৫১৫ জন, ইতালিতে এক লাখ ২৮ হাজার ২৯ জন, তুরস্কে ৫১ হাজার ১৮৪ জন, স্পেনে ৮১ হাজার ৪৪২ জন, জার্মানিতে ৯২ হাজার ১৩১ জন এবং মেক্সিকোতে ২ লাখ ৩৯ হাজার ৬১৬ জন মারা গেছেন।

প্রসঙ্গত, ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে চীন থেকে সংক্রমণ শুরু হওয়ার পর বিশ্বব্যাপী ছড়িয়েছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস। গত বছরের ১১ মার্চ করোনাভাইরাস সংকটকে মহামারি ঘোষণা করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *