ঠাকুরগাঁওয়ের রানীশংকৈলে ২৯৬ ভূমিহীন পরিবারকে জমি ও ঘর প্রদান

গীতি গমন চন্দ্র রায় গীতি।।স্টাফ রিপোর্টার। ঠাকুরগাঁওয়ের রানীশংকৈলে রবিবার ২০ জুন সকালে ভূমিহীন ও গৃহহীন ২’শ ৯৬ পরিবারকে জমি ও গৃহ হস্তান্তর করা হয়েছে। গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ভূমিহীনদের মাঝে জমি ও গৃহ হস্তান্তর কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

এ কার্যক্রমে রানীশংকৈল উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উপজেলা হলরুমে আলোচনাসভায় সহকারী কমকর্তা ভূমি (ভারপ্রাপ্ত ইউ এনও) প্রীতম সাহার সভাপত্বিতে আলোচনা জমির দলিলসহ ঘর প্রদান সভা অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন অতিরক্তি জেলা প্রশাসক কামরুন নাহার। সাবেক সংসদ সদস্য ইয়াসিন আলী,পৌর মেয়র আলহাজ্ব মোস্তাফিজুর রহমান,সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সইদুল হক, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান শেফালী বেগম,উপজেলা স্বাস্থ্য ও পঃপঃ কর্মকর্তা ডাঃ আব্দুস সামাদ চৌধুরী,থানা অফিসার ইনচার্জ এস এম জাহিদ ইকবাল, কৃষি বিদ ও উপজেলা কৃষি অফিসার সঞ্জয় দেবনাথ,উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক তাজউদ্দীন আহমেদ, আওয়ামী লীগের মহিলা সম্পাদিকা ফরিদা ইয়াসমিন, পৌর আওয়ামী লীগ সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম সরকার, বীর মুক্তিযোদ্ধা হাবিবুর রহমান,আরো উপস্থিত ছিলেন প্রতিটি দপ্তরের কর্মকর্তা গণ সহ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান, ৭১ এর বীর মুক্তিযোদ্ধাগণ,গৃহহীন উপকারভোগীরা সহ বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ।

সে অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রীর শুভেচ্ছা বক্তব্যের মাধ্যমে সারাদেশে ৫৩ হাজার ৩ শত ৪০ টি আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর উপকার ভোগীদের কাছে হস্তান্তর করেন প্রধানমন্ত্রী এরই অংশ হিসেবে রাণীশংকৈল উপজেলাতেও ২৯৬ টি ঘর ও জমি সহ কাগজপত্র উপকার ভোগীদের হাতে তুলে দেন স্থানীয় প্রশাসন। প্রশাসিন কর্মকর্তা গন তাদের নতুন বাড়িতে গিয়ে তাদের ঘরে তুলে দেন।
এসময় উপকারভোগি গন তাদের আনন্দের কথা জানান ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর জন্য দোয়া কামনা করেন।
প্রশাসনের তথ্য মতে দ্বিতীয় পর্যায়ে এবার রাণীশংকৈল উপজেলায় ২৯৬ টি ঘরের মালিকানা পত্র ও ঘর বুঝে দিয়েছেন ভূমিহীনদের মাঝে। উপজেলায় ৮ টি ইউনিয়নের ভুমিহীন দের মাঝে এই ঘর বুঝে দেওয়া হয়। ধর্মগড় কাশিপুর ৩৪, নেকমরদ ও রাতোরে ৪৬ টি,হোসেনগাঁও ও নন্দুয়ার ৯৩ টি,লেহেম্বায় ২৩ টি ও বাচোর ইউনিয়নে ১০০ টি ঘর উপকার ভোগীদের ভূমিহীনদের প্রদান করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *