ঝিনাইদহে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে অনশন করছে প্রেমিকা

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহের কোটচাদপুরে বিয়ের দাবিতে প্রেমিকের বাড়িতে অনশন করছে এক প্রেমিকা। গত বৃহস্পতিবার বিকেলে উপজেলার দেওড়া ইউনিয়নের লক্ষীপুর গ্রামে ওই নারী বিয়ের দাবিতে প্রেমিক রেজাউলের বাড়িতে গেলে রেজাউল তাকে বকা ঝকা করে বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেয়। এক পর্যায়ে প্রেমিকা পাশের বাড়িতে আশ্রয় নেয়। এমন খবর পেয়ে বাড়ির আশপাশের উৎসুক লোকজন ও দেওড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান কাবিল হোসেন ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই নারীকে উদ্ধার করেন। ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও স্থানীয় প্রতিবেশিদের মাধ্যমে জানা যায়, উপজেলার দোড়া ইউনিয়নের লক্ষীপুর গ্রামের মসলেম উদ্দিনের ছেলে রেজাউল ইসলাম (রেজা) বাংলাদেশ নৌবাহিনীতে পাঁচ বছর ধরে চাকরি করছেন। এদিকে ঝিনাইদহ সদর উপজেলার নারিকেল বাড়িয়া গ্রামের সাখাওয়াত হোসেনের মেয়ে বাংলাদেশ নৌবাহিনীতে চাকরি করেন। ভূক্তভোগী নারী বলেন চাকুরীর সুবাদে একপর্যায়ে প্রেমিক রেজাউলের সাথে আমার প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে এবং বিয়ের প্রলোভনে কয়েক বছর ধরে আমাকে নিয়ে খুলনার একটি ভাড়াবাসায় থাকেন। বিয়ের কথা বলে বছরের পর বছর ধরে ওই নারীর সাথে শারীরিক সম্পর্ক চালিয়ে আসছে রেজাউল ।গত কয়েক দিন ধরে খুলনার ভাড়াবাসা থেকে চলে এসে যোগাযোগ বন্ধ করে দেয় রেজাউল। পরে গত বৃহস্পতিবার বিকালে বিয়ের দাবিতে রেজাউলের বাড়িতে আসলে ওই নারীকে দোড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও স্থানীয়রা ওইদিন রাতে প্রেমিকার বাবা সাখাওয়াত হোসেনের হাতে তুলে দেন।এ ব্যাপারে লক্ষীপুর পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ শহিদুল ইসলাম জানান, এই ব্যাপারে আমাদেরকে কেউ জানাই নি। ক্যাম্পে লিখিত অভিযোগ দিলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *