ঝিনাইদহের শৈলকুপায় সাংবাদিককে কুপিয়ে জখম

নিজস্ব প্রতিবেদক : ঝিনাইদহের শৈলকুপায় মফিজুল ইসলাম নামের এক সাংবাদিককে প্রকাশ্যে কুপিয়ে জখম করেছে দূর্বৃত্তরা। ঘটনাটি আজ সোমবার সকাল ৮টার দিকে উপজেলার ধলহরাচন্দ্র গ্রামে।

মফিজুল ইসলাম দৈনিক নয়াদিগন্ত ও লোকসমাজ পত্রিকার শৈলকুপা উপজেলা প্রতিনিধি ও শৈলকুপা প্রেসক্লাবের সহ-সভাপতি। তাকে উদ্ধার করে শৈলকুপা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে পরিবারের সদস্যরা। এ সময় তার ক্যামেরা, মোবাইল ও নগদ টাকা ছিনিয়ে নেয় বলে জানায় শৈলকুপার সাংবাদিকরা।

আহত মফিজুল ইসলাম বলেন সোমবার সকালে তিনি পেশাগত দায়িত্ব পালনে নিজ বাড়ি থেকে বের হয়ে একটু দুরে গেলেই জমি নিয়ে বিরোধে ধলহরাচন্দ্র গ্রামের ধীরেন মন্ডলের ছেলে সঞ্জয়, সাধন, অজয় এবং একই গ্রামের সুভাস, সুজনসহ কয়েকজন ধারালো অস্ত্র দিয়ে তার উপর হামলা চালায়।

এ সময় ধারালো অস্ত্রের আঘাতে তার মাথা কেটে যায় বলে জানান তিনি। পরে খবর পেয়ে তার পরিবারের সদস্যরা তাকে উদ্ধার করে শৈলকুপা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।]

শৈলকুপা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বজলুর রহমান বলেন তিনি ঘটনাটি শুনেছেন। ঘটনাস্থল পুলিশ পরিদর্শন করেছে। দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

এদিকে শৈলকুপা প্রেসক্লাবের সহসভাপতি সাংবাদিক মফিজুল ইসলাম মফিজের উপর সন্ত্রাসী হামলা তীব্র নিন্দা জানিয়েছে শৈলকুপা প্রেসক্লাব। প্রেসক্লাবের সভাপতি এম হাসান মুসার সভাপতিত্বে আজ দুপুরে এক জরুরী সভা ডেকে সাংবাদিকরা অবিলম্বে হামলাকারীদের গ্রেফতারের দাবি জানিয়েছেন। এসময় প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক শাহীন আক্তার পলাশসহ সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *