যশোর সদরের বিভিন্ন মন্দিরে সাড়ে ১২ লাখ টাকা অনুদান

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শাহীন চাকলাদার বলেছেন, বর্তমান সরকার অসাম্প্রদায়িক চেতনায় বিশ্বাসী। বাংলাদেশে সবাই স্ব স্ব ধর্ম স্বাধীনভাবে পালন করবে। তবে উৎসব করবে সবাই। এই উৎসবে যদি কোনো দুর্বৃত্ত ব্যাঘাত ঘটাতে চায় তাহলে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।
গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে যশোর সদর উপজেলার বিভিন্ন মন্দির ও মণ্ডপ কর্তৃপক্ষের নিকট আসন্ন দুর্গাপূজা উপলক্ষে সরকারি অনুদানের অর্থ প্রদানের সময় শাহীন চাকলাদার এসব কথা বলেন।
শাহীন চাকলাদার আরো বলেন, বাংলাদেশ সংবিধানে সংখ্যালঘু নামে কোনো শব্দ নেই। আওয়ামী লীগও সংখ্যালঘু তত্ত্বে বিশ্বাস করে না। তাই আপনারা নিজেদের সংখ্যালঘু হিসেবে ভাববেন না। আমরা সবাই বাঙালি। নিজেদের বাঙালি হিসেবে শক্তিশালী ভাববেন। যারা সংখ্যালঘু সংখ্যালঘু বলে আমাদের মধ্যে বিভেদ করতে চায় তাদের আমাদের ঐক্যবদ্ধভাবে মোকবিলা করতে হবে।
শহরের বেজপাড়া পূজামন্দিরে সদর উপজেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি দুলাল সমাদ্দারের সভাপতিত্বে এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন যশোর জেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের সভাপতি অসীম কুন্ডু, সাধারণ সম্পাদক যোগেষ দত্ত, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা একেএম খয়রাত হোসেন, যুগ্মসাধারণ সম্পাদক আব্দুল মজিদ, বন ও পরিবেশ বিষয়ক সম্পাদক রেজাউল ইসলাম, উপপ্রচার সম্পাদক জিয়াউল হাসান হ্যাপী, সদস্য মশিয়ার রহমান সাগর, গোলাম মোস্তফা, যশোর পৌরসভার কাউন্সিলর মুস্তাফিজুর রহমান মুস্তা, সদর উপজেলা পূজা উদ্যাপন পরিষদের সহসভাপতি অমল ঘোষ, রবিন মজুমদার, সাধারণ সম্পাদক দেবেন ভাস্কর, যুগ্মসাধারণ সম্পাদক রবিন পাল, গৌতম কর্মকার, জেলা ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্মসাধারণ সম্পাদক শাহজাহান কবির শিপলু প্রমুখ। অনুষ্ঠান থেকে যশোর সদর উপজেলার ১৪৬ মন্দির ও মণ্ডপে ১২ লাখ ৫৫ হাজার ৬০০ টাকা সরকারি অনুদান প্রদান করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *