মণিরামপুরে স্বামীর দেড় লক্ষাধিক টাকা নিয়ে পালালো স্ত্রী রিলী খাতুন

উত্তম চক্রবর্তী,মণিরামপুর(যশোর)অফিস৷৷ মণিরামপুরের রাজগঞ্জ এলাকায় ব্যবসায়ী স্বামীর এক লাখ ৭০ হাজার টাকা নিয়ে উধাও হয়েছেন স্ত্রী রিলী খাতুন (৩৬)।
গত সোমবার (১৬ ডিসেম্বর) ভোরে তিনি ইত্যা গ্রামের স্বামী নাসির উদ্দিনের বাড়ি থেকে পালিয়ে যান। অনেক খুঁজে কোন সন্ধ্যান মিলাতে না পারায় স্ত্রী রিলী, শাশুড়ী পাতা বেগম ও শ্যালক হিমেল হোসেনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ করেছেন তিনি। নাসির ইত্যা গ্রামের আব্দুল মজিদের ছেলে। তিনি পেশায় মাংশ ব্যবসায়ী। রিলী তার দ্বিতীয় স্ত্রী।
নাসির অভিযোগ করেন, পাঁচ বছর আগে একই উপজেলার মুড়াগাছা মদনপুর গ্রামের আব্দুস সাত্তারের মেয়ে রিলীকে ভালবেসে বিয়ে করেন তিনি। গত রোববার (১৫ ডিসেম্বর) তার দোকানে হালখাতা ছিল। ওই রাতে হালখাতায় আদায় হওয়া টাকার মধ্যে এক লাখ ৭০ হাজার টাকা তিনি স্ত্রী রিলী খাতুনের কাছে রাখেন। পরের দিন সকালে তিনি ইত্যা বাজারে নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে চলে যান। সেই সুযোগে হালখাতার টাকা নিয়ে পালিয়ে যান রিলী খাতুন।
বিয়ের পর থেকে মেয়েকে বিভিন্নভাবে প্ররোচনা দিয়ে আসছিলেন মা পাতা বেগম। মায়ের কথা শুনে এরআগেও দুই বার ব্যবসার টাকা নিয়ে রিলী পালিয়েছিলেন। রিলী অন্য পুরুষের সাথে মোবাইলে কথা বলতেন বলে অভিযোগ নাসিরের। একমাস আগে বিষয়টি টের পেয়ে স্ত্রীকে তিনি সাবধানও করেছিলেন।
নাসির বলেন, দুই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান, মেম্বর ও স্থানীয় রাজনৈতিক নেতাদের বিষয়টি জানিয়েছি। অনেক খোঁজাখাঁজি করে স্ত্রীর কোন সন্ধ্যান মিলাতে না পেরে বুধবার সকালে থানায় অভিযোগ করেছি।
কাশিমনগর ইউপি চেয়ারম্যান জিএম আহাদ আলী বলেন, বিষয়টি হরিহরনগর ইউপি চেয়ারম্যান জহুরুল ইসলামের সাথে আলোচনা করেছি। ওই নারীর সন্ধ্যান মেলানোর চেষ্টা চলছে।
মণিরামপুর থানার এসআই শ্যামল সরকার বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। ঘটনাটি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *