পুলিশ পরিচয়ে প্রতারণা দুই যুবক গ্রেফতার টাকা ও মোবাইল জব্দ

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ পুলিশ পরিচয় দিয়ে প্রতারণার অভিযোগে জহিদ ও উজ্জল হোসেন নামে দুই যুবককে গ্রেফতার করেছে কালীগঞ্জ থানা পুলিশ। সম্পর্কে এরা মামাতো ফুফাতো ভাই। শনিবার গভীররাতে যশোরের অভয়নগর উপজেলার আমডাঙ্গা এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করা হয়। তাদের কাছ থেকে উদ্ধার হয়েছে প্রতারণা করে উপার্জিত ৬২ হাজার টাকা ও বেশ কয়েকটি মোবাইল সেট ও সিম। অভিযানের নেতৃত্ব দেন কালীগঞ্জ থানার এসআই জাকারিয়া ও পিএসআই আশিকুল। পুলিশ জানায় প্রতারক উজ্জল বেনাপোল পোর্ট থানা এলাকার ছোট আঁচড়া গ্রামের রফিকুল ইসলাম খোকন ও জাহিদ শার্শা উপজেলার বেনাপোল পোর্ট এলাকার বড় আঁচড়া গ্রামের ছামসুজ্জোহার ছেলে। রোববার দুপুরে ঝিনাইদহ পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে ঝিনাইদহ সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবুল বাশার জানান, জাহিদ ও উজ্জল ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ ও যশোরের কেশবপুরসহ বিভিন্ন এলাকার ইউপি মেম্বর-চেয়ারম্যানদের কাছে পুলিশ পরিচয় দিয়ে প্রতারণার মাধ্যমে অর্থ উপার্জন করে আসছিল। তাদের প্রতারণার বিষয়টি ছিল ভিন্ন। স্মার্ট ভাবে কথাবার্তা বলে তারা সহজেই ইউপি চেয়ারম্যান এবং মেম্বরদের বশ করতে পারতো। এ ভাবে তারা কালীগঞ্জের ২০ ব্যক্তির কাছে পুলিশ পরিচয়ে ফোন করে ৭ ব্যক্তির কাছে সফল হয় এবং টাকা হাতিয়ে নেয়। এছাড়া ঝিনাইদহ ও যশোরের কেশবপুর এলাকার মেম্বর চেয়ারম্যানদের কাছেও ফোন করে একই ভাবে প্রতারণার মাধ্যমে টাকা হাতিয়ে নেয় জাহিদ ও উজ্জল। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আবুল বাশার আরো জানান, এ ধরনের অপরাধের তথ্য পেয়ে পুলিশ মোবাইল ট্রাকিং করে এই চক্রের দুই হোতাদের সনাক্ত করে। প্রতারক জহিদ ও উজ্জল হোসেন গনমাধ্যম কর্মীদের জানান, তারা দায়দেনার জড়িয়ে এই কাজের সঙ্গে যুক্ত হয়ে পড়ে। মুক্ত হয়ে তারা রিক্সা ভ্যান চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করবেন বলেও জানান। কালীগঞ্জ থানার এসআই জাকারিয়া জানান, প্রতারখ উজ্জল ও জাহিদকে রোববার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *