পাঁচ ভারতীয় যুবককে ‌‌‘অপহরণ’ করেছে চীন

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : চীনা সেনাবাহিনী পিপলস লিবারেশন আর্মির সদস্যরা ভারতের পাঁচ নাগরিককে অপহরণ করে নিয়ে গেছে বলে অভিযোগ করেছেন অরুণাচল প্রদেশের কংগ্রেস বিধায়ক নিনং এরিং।

রাজ্যের আপার সুবর্ণসিরি জেলার নাচো সার্কল এলাকা থেকে শনিবার ভোরে তাদের অপহরণ করা হয়। যে ৫ যুবককে অপহরণ করা হয়েছে, তারা হলেন- তনু বাকার, প্রশাত রিংলিং, নগরু দিরি, দোংতু এবিয়া ও তচ সিংকম।

অপহৃতদের এক জনের ভাই প্রকাশ রিংলিংও টুইট করে এই অভিযোগ করেছেন। অপহৃতরা সবাই স্থানীয় তাজিন সম্প্রদায়ের। পরে সেই টুইটই রিটুইট করেন অরুণাচল প্রদেশের পাসিঘাট পশ্চিম বিধানসভা কেন্দ্রের বিধায়ক নিনং এরিং।

তিনি জানান, পাঁচ যুবককে পিপলস লিবারেশন আর্মির সদস্যরা অপহরণ করেছেন বলে তিনি অভিযোগ পেয়েছেন। গত মার্চে আরও এক যুবককে অপহরণ করা হয়েছিল। তবে ভারতীয় সেনাবাহিনীর সহযোগিতায় ২১ বছরের ওই যুবক পরে ফিরে আসতে পেরেছিলেন।

অরুণাচল পুলিশের ডিজি আর আর উপাধ্যায় জানিয়েছেন, এ দিন ভোরে নাচো সার্কলের সেরা-৭ এলাকার একটি জঙ্গল থেকে পাঁচ যুবককে অপহরণ করা হয়েছে। তবে অপহৃতদের পরিবারের পক্ষ থেকে সরকারিভাবে কোনো অভিযোগ পুলিশ পায়নি। ভারতীয় সেনাবাহিনীর সাহায্য চাওয়া হয়েছে।

অরুণাচল প্রদেশের পুলিশ সূত্রে খবর, যেখান থেকে পাঁচ যুবককে অপহরণ করা হয়েছে সেই সেরা-৭ এলাকা থেকে ভারত-চীন প্রকৃত নিয়ন্ত্রণরেখা ১০০ কিলোমিটার দূরে। ওই যুবকরা খুব ভোরে সেরা-৭ এলাকার জঙ্গলে গিয়েছিলেন গাছের গুল্ম সংগ্রহ করতে। তাদের ভোর পাঁচটা নাগাদ অপহরণ করা হয় বলে সন্দেহ করা হচ্ছে।

অপহৃতদের কোথায় নিয়ে যাওয়া হয়েছে, তার সন্ধান নেয়ার জন্য ভারতীয় সেনাবাহিনীর সাহায্য চাওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে অরুণাচল প্রদেশের পুলিশ।

সূত্র: আনন্দবাজার

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *