নড়াইল জেলা প্রশাসকের গোপনীয় সহকারী, লোহাগড়া পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলরসহ করোনা আক্রান্ত ১০

নড়াইল প্রতিনিধি ॥ নড়াইল জেলা প্রশাসকের গোপনীয় সহকারী, লোহাগড়া পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডের সাবেক কাউন্সিলর, লোহাগড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত নার্সের স্বামী নতুন করে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন।

রোববার (২৬ এপ্রিল) তাদের শরীরে করোনা সংক্রমণের পজিটিভ রেজাল্ট আসে।এ নিয়ে নড়াইলে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়ালো দশজনে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সিভিল সার্জন ডা: মো: আবদুল মোমেন।

সিভিল সার্জন অফিস সূত্রে জানা যায়, নড়াইল জেলা প্রশাসকের গোপনীয় সহকারী, লোহাগড়া পৌরসভার ৬নং ওয়ার্ডের সাবেক কাউন্সিলর, লোহাগড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত নার্সের স্বামীর করোনা উপসর্গ দেখা দিলে তাদের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়। পরীক্ষা শেষে রোববার তাদের শরীরে করোনা সংক্রমণের পজিটিভ রেজাল্ট আসে। এর আগে শনিবার (২৫ এপ্রিল) লোহাগড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের দাঁতের টেকনিশিয়ানের নমুনা পরীক্ষায় করোনা সংক্রমণের পজিটিভ রেজাল্ট আসে।

এছাড়া গত মঙ্গলবার (২১ এপ্রিল) লোহাগড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ৪ চিকিৎসকসহ একজন ষ্টাফের করোনা উপসর্গ দেখা দিলে তাদের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষার জন্য যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষাগারে পাঠানো হলে পরীক্ষা শেষে বুধবার (২২ এপ্রিল) তাদের পাঁচজনের শরীরে করোনা সংক্রমণের পজিটিভ রেজাল্ট আসে।

সিভিল সার্জন ডা: মো: আবদুল মোমেন জানান, নড়াইল সদর উপজেলায় একজন, লোহাগড়া উপজেলায় ৯জনসহ জেলায় মোট ১০ জনের শরীরে করোনা ভাইরাস শনাক্ত হলো। করোনা আক্রান্ত জেলা প্রশাসকের গোপনীয় সহকারী, লোহাগড়া পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলর, লোহাগড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত নার্সের স্বামী, চার ডাক্তার, দাঁতের টেকনিশিয়ানসহ এক ষ্টাফের শারিরীক অবস্থা এখনো স্বাভাবিক পর্যায়ে রয়েছে। বর্তমানে তারা সবাই হোম কোয়ারেন্টাইনে আছেন। সর্বপ্রথম গত ১৩ এপ্রিল রাত সাড়ে ৮টার দিকে জেলার লোহাগড়া পৌরসভার পার ছাতড়া এলাকার এক ব্যক্তির করোনাভাইরাস পরীক্ষার ফলাফলে পজিটিভ রেজাল্ট আসে।করোনায় আক্রান্ত সুজন বর্তমানে সুস্থ বলে জানান সিভিল সার্জন ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *