গুলি-বোমায় কেঁপে উঠল বনানী!

নিজস্ব প্রতিবেদক : শুক্রবার বিকাল পাঁচটা। রাজধানীর বনানীর নরডিক হোটেলসে ঢুকে কয়েকজন জঙ্গি। তৃতীয় তলায় কয়েকজন বিদেশি অতিথিকে জিম্মি করে ফেলে তারা। কিছু সময়ের মধ্যে র‌্যাব হোটেলটি ঘিরে ফেলে। মুহূর্তে হাজির করা হয় উন্নত বিভিন্ন প্রযুক্তি। বিভিন্ন ভবনের ছাদে স্নাইপার রাইফেল নিয়ে অবস্থান নেন র‌্যাব সদস্যরা। চলে মুহুর্মুহু গুলি। হোটেলের ভেতর থেকে র‌্যাবকে লক্ষ্য করে ছোঁড়া হয় গুলি। র‌্যাবও পাল্টা গুলি ছোঁড়ে।

এরই মধ্যে আরেকটি দল আইইডিডি রেসপন্স, ভেকেল, র‌্যাটার ভেকেল, জ্যামার, টিসিভি নিয়ে ঘিরে ফেলে হোটেলটি। দুই মিনিটের মধ্যে একটি হেলিকপ্টার থেকে কয়েকজন কমান্ডোকে হোটেল ছাদে নামিয়ে দেওয়া হয়। ত্রিমুখি সংঘর্ষে মাত্র চার মিনিটের মধ্যে শেষ হয় অভিযান। জিম্মিদশা থেকে উদ্ধার করা হয় আহত কয়েকজনকে। নিহত হয় জঙ্গিরা।

তবে শ্বাসরুদ্ধকর এই বর্ণনা বাস্তব কোনো জঙ্গি হামলার নয়। র‌্যাবের একটি বিশেষায়িত মহড়ার। শুক্রবার বিকালে বনানীর ১৭ নম্বর সড়কের ব্লক-সি’তে এই মহড়া অনুষ্ঠিত হয়।

মহড়ায় উপস্থিত ছিলেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব (জননিরাপত্তা শাখা) মোস্তাফা কামাল উদ্দীন, র‌্যাব-প্রধান বেনজির আহমেদ ছাড়াও বাহিনীর প্রতিটি ব্যাটেলিয়নের প্রধান এবং ডিএমপির গুলশান জোনের কর্মকর্তারা।

মহড়ায় অংশ নেওয়া র‌্যাব সদস্যদের ধন্যবাদ জানান স্বরাষ্ট্র সচিব। বলেন, ‘র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন র‌্যাব বাংলাদেশে অত্যন্ত চৌকস এবং এলিট ফোর্স হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেছে। বর্তমানে তাদের সক্ষমতা অনেক বৃদ্ধি পেয়েছে। আজকে তারা থ্রি ডাইমেনশনাল কমান্ড অপারেশন পরিবেশন করেছে। ভবিষ্যতে যদি জঙ্গি বা কোনো দুর্বৃত্ত কোনো প্রতিষ্ঠান, হোটেল বা আবাসিক ভবনে এমন জিম্মি করার চেষ্টা করে তাহলে এমনভাবেই তাদেরকে প্রতিহত করা হবে।’

সচিব আরও বলেন, ‘বর্তমান সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দুর্নীতি, জঙ্গি, সন্ত্রাস এবং মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষণা করেছেন। সে দিকে লক্ষ্য রেখেই বাংলাদেশ সরকারের পক্ষে বিশেষ করে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের অধীনে যেসব বাহিনী রয়েছে পুলিশ, র‌্যাব, বিজিবি, আনসার, কোস্টগার্ড সবাইকে মিলে এই দেশটাকে বিশ্বের বুকে শান্তিপূর্ণ দেশ হিসেবে রোল মডেল পরিচিত করতে প্রচেষ্টা চলছে। সরকার উন্নয়নশীল দেশ গড়ে তুলেছে, যা বিশ্বের বুকে ভিন্ন একটি স্থান করে নিয়েছে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *